ভুয়ো ছবি শেয়ার করে দাবি নির্মলা পান্তাকে জনসমক্ষে ধর্ষণ করা হচ্ছে

False Social

২০১৮ সালে নেপালে একটি জখন্য ঘটনায় একটি ১৩ বছর বয়সী কিশোরীকে ধর্ষণ করে খুন করা হয়েছিল। তার পর থেকেই এই ঘটনার দোষীদের কঠোরতম শাস্তির দাবিতে সোশ্যাল মিডিয়ায় সরব হয়েছেন নেটিজেনরা। ঘটনাটি নেপালের কাঞ্চনপুরা এলাকায় ঘটেছে। ১৩ বছরের এই কিশোরীর বাড়ির পাশেই এই নির্মম ঘটনাটিকে পরিনাম দেয় দুষ্কৃতিরা। 

দুবছর ধরে দোষীদের শাস্তির দাবিতে বিভিন্ন সমাজসেবী সংস্থা রাস্তায় রাস্তায় বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। এবং সোশ্যাল মিডিয়াতেও এই ঘটনাকে নিয়ে অনেক পোস্ট, ছবি এবং ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে। স্বাভাবিকভাবেই ভুয়ো খবরও ছড়িয়েছে অনেক। এমনই একটি ভুয়ো ছবি বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ায় চর্চার বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। ছবিতে দেখা যাচ্ছে, একজন ছেলে একজন মেয়েকে ধরে রেখেছে এবং মেয়েটি নিজেকে ছাড়ানোর চেষ্টা করছে এবং অনেকগুলি লোক তাঁদেরকে ঘিরে দাঁড়িয়ে মোবাইলে ভিডিও রেকর্ড করছে। দাবি করা হচ্ছে, এটি ২০১৮ সালের নেপালের ওই ১৩ বছরের ধর্ষণের ঘটনার ছবি এবং জনসমক্ষে এমন দুষ্কর্ম হওয়া সত্ত্বেও কেউ কোনও প্রতিবাদ করছে না। আরও দাবি, ঘটনাস্থলে পুলিশ উপস্থিত থাকা সত্ত্বেও কোনও পদক্ষেপ না নিয়ে মোবাইলে ভিডিও করছে। 

ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো তথ্য যাচাই করে দেখতে পেয়েছে এই দাবি ভুয়ো এবং বিভ্রান্তিকর। 

download (23).png

ফেসবুক

তথ্য যাচাই  

এই ছবিগুলিকে রিভার্স ইমেজ সার্চ করে ২০১৮ সালের একটি ইউটিউব ভিডিওতে এই মেয়েটিকে দেখতে পাই। ভিভিওটির শিরোনামে হিন্দি ভাষায় লেখা রয়েছে, “নির্মলা পন্তের ধর্ষণ এবং খুনের ঘটনার উপর করা হৃদয়বিদারক স্ট্রিট ড্রামা।“ 

আর্কাইভ

আরও তথ্যের জন্য কিওয়ার্ড সার্চ করে দেখতে পাই, ডি সি নেপাল নামে একটি নেপালের সংবাদমাধ্যমের ইউটিউব চ্যানেল থেকে এই ভিডিওটি শেয়ার করে হয়েছে। শিরোনামে লেখা রয়েছে, “নির্মলা পন্তের ধর্ষণ ও খুনের বিরোধ, নির্মলা পান্তা মামলার স্ট্রিট প্লে”। 

আর্কাইভ

২০১৮ সালের ১০ ডিসেম্বর এই ভিডিওটির চার মিনিটের একটি অংশকে ‘ক্লাসিক নেপাল’ নামে একটি ফেসবুক পেজ থেকেও শেয়ার করা হয়েছিল। এই ভিডিওটির ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “নির্মলা ধর্ষণ ও হত্যা মামলার ওপর স্ট্রিট প্লে”। 

এই ভিডিওটির সত্যতা যাচাই করার জন্য ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো ‘ডি সি নেপাল’ সংবাদমাধ্যমের সাংবাদিক কমল সৌদের সাথে যোগাযোগ করে। এই বিষয়ে জিজ্ঞাসা করায় তিনি বলেন,
“নির্মলা পান্তা ন্যায় অভিযান নামে একটি সংঘটন ওই কিশোরীর দোষীদের শাস্তির দাবিতে ৮ ডিসেম্বর, ২০১৮, কাঠমান্ডুর বানেশ্বরে একটি স্ট্রিট প্লে অভিনয় করে। এটি ওই নাটকেরই ভিডিও। এই সংগঠনটি বিভিন্ন রকম স্ট্রিট প্লের মাধ্যমে সরকারের ওপর প্রশ্ন তোলে। এই মামলার অপরাধীদের কঠোর থেকে কঠোরতম শাস্তির দাবিতে এই নাটকটি রাস্তায় মঞ্চস্থ করা হয়। এই নাটকটি যেখানে হচ্ছিল সেখানে আমি উপস্থিত ছিলাম এবং ডি সি নেপালের প্রতিনিধি হিসেবে আমিই এই ভিডিওটি রেকর্ড করেছিলাম। আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য সেখানে পুলিশও উপস্থিত ছিল।“ 

এরপর আমরা নেপালের বরিষ্ঠ সমাজসেবক পুকার বামের সাথে সম্পর্ক করি। তিনি আমাদের এই আন্দোলনের (নির্মলা পান্তা ন্যায় অভিযান) মুখ্য ক্যাম্পেইনার ভাবনা রাইতের সাথে যোগাযোগ করিয়ে দেন। 

ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডোকে ভাবনা রাউত জানান,
“এগুলি আমার লেখা নাটকেরই ছবি। এটা আসল ঘটনার দৃশ্য নয়। এই নাটকের সময় আমি সেখানে উপস্থিত ছিলাম।“  

এছাড়া তিনি এই স্ট্রিট প্লের আরও কয়েকটি ছবি পাঠান। 

image2.png

নিষ্কর্ষঃ তথ্য যাচাই করে ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো সিদ্ধান্তে এসেছে উপরোক্ত দাবিটি ভুল। ভাইরাল হওয়া ছবিগুলি নির্মলা পান্তা ধর্ষণ ও খুনের ভিডিওর ছবি নয়। এগুলি একটি স্ট্রিট প্লের ছবি। 

Avatar

Title:ভুয়ো ছবি শেয়ার করে দাবি নির্মলা পান্তাকে জনসমক্ষে ধর্ষণ করা হচ্ছে

Fact Check By: Rahul A 

Result: False


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *