পুরনো ছবিকে গুজরাটের শ্মশানের ছবি দাবির করে ভুয়ো পোস্ট ভাইরাল

False Politics

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি পুরনো ছবি শেয়ার করে দাবি করা হচ্ছে, বিজেপি শাসিত রাজ্য গুজরাটে কোভিডে মৃতদের গণচিতায় পোড়ানো হচ্ছে। পোস্টে দেখা যাচ্ছে পর পর সাজানো অনেকগুলি চিতার অবশিষ্টাংশ পড়ে রয়েছে, কয়েকটিতে এখনও আগুন জ্বলছে। আশে পাশে অনেকগুলি লোক দাড়িয়ে রয়েছে। পোস্টের ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “#বিজেপি শাসিত ‘সোনার গুজরাটে ‘ কোভিডে মৃতদের গণচিতা জ্বলছে !! এদিকে মোদী-অমিত শাহ বাংলায় এসে বাংলাকে শ্মশানে পরিণত করতে উঠেপড়ে লেগেছেন। এই বিজেপিকে বাংলায় আনা যায়  ???”

তথ্য যাচাই করে আমরা দেখতে পেয়েছি এই দাবি ভুয়ো এবং বিভ্রান্তিকর। একটি পুরনো ছবিকে গুজরাটের শ্মশানের দৃশ্য দাবি করে বিভ্রান্তিকর ভুয়ো পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে। 

ফেসবুক আর্কাইভ 

উল্লেখ্য, গত তিন ধরেই দেশের দৈনিক করোনা সংক্রমণ দু’লক্ষ ছাড়িয়ে যাচ্ছে। এবং রোজই তা বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ২ লক্ষ ৩৪ হাজার ৬৯২ জন। সংক্রমণ বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে দেশে দৈনিক মৃত্যুও লাফিয়ে বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৩৪১ জনের। একদিনে মৃত্যুর নিরিখে যা গোটা করোনা পর্বে সর্বোচ্চ।

তথ্য যাচাই

এই দাবির সত্যতা যাচাই করতে ছবিটিকে প্রথমে গুগল সহ বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিনে রিভার্স ইমেজ সার্চ করি। ফলাফলে “দ্যা অ্যাপ্রিসিটি” নামে একটি ওয়েবসাইটে এই ছবিটি দেখতে পাই। ২০১৭ সালে এই ছবিটি আপলোড করা হয়েছিল। 

দ্যা অ্যাপ্রিসিটি আর্কাইভ

আরও দেখতে পাই “হিন্দি স্ক্রিপ্ট রাইটার” একটি ব্লগে এই ছবিটিকে ২০১২ সালে আপলোডঃ করা হয়েছিল। সেখানে এটিকে বেনারসের মণিকর্ণিকা ঘাট বলে দাবি করা হয়। 

ব্লগ প্রতিবেদন আর্কাইভ

এরপর প্রাসঙ্গিক কিছু কিওয়ার্ড সার্চ করে দেখতে পাই ২০১৮ সালে হিন্দি সংবাদমাধ্যম “জনসত্তা”র একটি প্রতিবেদন এই ছবিটিকে ব্যবহার করা হয়েছিল। সেখানেও এটিকে কাশীর মণিকর্ণিকা ঘাট বলা হয়েছে। 

প্রতিবেদন আর্কাইভ

উপরোক্ত প্রমাণ থেকে স্পষ্ট হয়ে যায় এটি সম্প্রতির গুজরাটের কোনও শ্মশানের ছবি নয়। ২০১২ সাল থেকেই এটি ইন্টারনেটে রয়েছে।

নিষ্কর্ষঃ তথ্য যাচাই করে ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো সিদ্ধান্তে এসেছে উপরোক্ত দাবিটি ভুল। একটি পুরনো ছবিকে গুজরাটের শ্মশানের দৃশ্য দাবি করে ভুয়ো পোস্ট ভাইরাল করা হচ্ছে।

Avatar

Title:পুরনো ছবিকে গুজরাটের শ্মশানের ছবি দাবির করে ভুয়ো পোস্ট ভাইরাল

Fact Check By: Rahul A 

Result: False


Leave a Reply

Your email address will not be published.