করোনা অনুদান হিসেবে বাংলাকে কী ৪২,০০০ কোটি দিয়েছে কেন্দ্র ?

Coronavirus False

IMG_20200710_143514.jpg

‘করোনা মোকাবিলার জন্য রাজ্য সরকারকে ৪২ হাজার কোটি টাকার সাহায্য করল মোদি সরকার,’ এমনটাই দাবি করে সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভুল খবর ছড়াচ্ছে বাংলার বেশ কয়েকটি নিউজ পোর্টাল। সঙ্গে এই খবর ছবি ও ভিডিও রুপে ঘুরে বেড়াচ্ছে ফেসবুক জুড়ে । এর আগেও ভুল তথ্য বা অর্ধসত্য তথ্য দিয়ে খবর প্রকাশ করেছে এই ডিজিটাল গনমাধ্যমটি। বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রকের পঞ্চদশ অর্থ সুপারিশ প্রকাশ্যে আসার পর বিভ্রান্তিকর এই প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়। 

IMG_20200710_140856.jpg
বাংলা হান্ট  আর্কাইভ
IMG_20200710_173325.jpg
ফেসবুকআর্কাইভ

তথ্য যাচাইঃ 

প্রতিবেদনটি পড়ে আমরা জানতে পারি অর্থমন্ত্রী নির্মলা সিথারমন টুইট করে এই অর্থ কমিশনের কথা ঘোষণা করেছেন। স্বাভাবিক ভাবেই প্রথমে আমরা টুইটারে কিওয়ার্ড সার্চ করি। ফলাফলে অর্থমন্ত্রীর ভেরিফাইড অ্যাকাউন্ট ও প্রতিবেদনগুলিতে উল্লেখ্য টুইটটি খুজে পাই। টুইটে তিনি জানিয়েছেন, পঞ্চদশ অর্থ কমিশনের সুপারিশে দেশের ১৪টি রাজ্যকে ৬,১৯৫ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। সঙ্গে তিনি একটি তালিকা দিয়েছেন যেখানে ওই ১৪টি রাজ্যের নাম সহ কোন রাজ্য কত টাকা পাচ্ছে তা উল্লেখ করে দেওয়া হয়েছে।

আর্কাইভ

টুইটে দেওয়া তালিকায় প্রতিটি রাজ্যকে দেওয়া অনুদান লক্ষ হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে। অনুদানের তালিকার ওপরে লেখা রয়েছে “Rs. In Lakhs”। উদাহরন স্বরুপ, অন্ধ্রপ্রদেশ পেয়েছে ৪৯,১৩১.৬৬ লক্ষ টাকা বা ৪৯১.৩১ কোটি টাকা। ঠিক তেমনই বাংলার খাতে বরাদ্দ করা হয়েছে ৪১,৭৭৫ লক্ষ টাকা বা ৪১৭. ৭৫ কোটি টাকা। 

PicsArt_07-10-02.23.05.jpg

অর্থমন্ত্রী টুইটে আরও লিখেছেন, “এই অর্থ করোনা মোকাবিলায় সহায়ক হবে”। অর্থাৎ, তিনি বলতে চেয়েছেন রাজস্ব বাবদ দেওয়া অনুদান করোনায় মোকাবিলায় সাহায্য করবে। কিন্তু এই টাকা করোনা মোকাবিলার অনুদান হিসেবে দেওয়া হয়েছে এমন কথা কোথাও উল্লেখ করেননি অর্থমন্ত্রী নির্মলা। রাজ্যগুলিকে এই অনুদান রাজস্ব ঘাটতি বাবদ দেওয়া হবে। 

রাজস্ব ঘাটতি অর্থাৎ কর ও অন্যান্য খাতে রাজ্যের আয়ের থেকে বেতন-পেনশন, সুদে-আসলে ধার শোধের মতো খাতে খরচ বেশি। রাজস্ব ঘাটতি সম্বন্ধে আরও জানতে পড়ুন
আর্কাইভ 

অর্থ কমিশনের বিষয়টিকে রাজ্যের অনেক নামকরা গণমাধ্যমও প্রকাশ করেছে। এই বিষয়ে আরও জানতে এই লিঙ্কটি ক্লিক করুন |
আর্কাইভে 

ফলাফলঃ তথ্য যাচাই করে আমরা সিদ্ধান্তে এসেছি উপরোক্ত দাবিটি ভুল। এই প্রতিবেদনটি ভিত্তিহীন এবং বিভ্রান্তিকর। রাজস্ব ঘাটতি অনুদান হিসেবে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রক বাংলাকে ‘৪১ হাজার ৭৭৫ লক্ষ’ টাকা দিয়েছে ‘৪২ হাজার কোটি’ নয়। এবং এই টাকা করোনা মোকাবিলা বাবদ দেওয়া হয়নি। যেহেতু রাজ্যগুলি লকডাউনে অর্থসঙ্কটে ভুগছে, সেই বিষয়কে মাথায় রেখে অর্থমন্ত্রী বলেছেন, “এই অর্থ করোনা মোকাবিলায় সহায়ক হবে”।

Avatar

Title:করোনা অনুদান হিসেবে বাংলাকে কী ৪২,০০০ কোটি দিয়েছে কেন্দ্র ?

Fact Check By: Rahul A 

Result: False


Leave a Reply

Your email address will not be published.