ইমরান খানের সরকার পতন নিয়ে কোনও মন্তব্য করেননি নাসিরা জাভিদ 

False International

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুকে একটি পোস্ট শেয়ার করে দাবি করা হচ্ছে, ইমরান খানের পক্ষে মন্তব্য করলেন পাকিস্তানের প্রাক্তন বিচারক নাসিরা জাভিদ ইকবাল। একটি লম্বা ক্যাপশনযুক্ত পোস্ট শেয়ার করে এই দাবি করা হচ্ছে।

পোস্টের ক্যাপশনে লেখা রয়েছে, “ইমরান খানের অপসারণের পেছনে রয়েছে ডলার কূটনীতি! =================================== আল্লামা ইকবালের পুত্রবধূ ও পাকিস্তান হাইকোর্টের সাবেক সাবেক জাজ নাসিরা জাভেদ ইকবাল ইমরানের পতনের পিছনে আমেরিকান ভূমিকা নিয়ে ইসলামাবাদ টাইমসে একটি চমৎকার কলাম লিখেছেন। নিচে তার সারমর্ম তুলে দিলাম। মূল পোস্ট কমেন্টে: . আমেরিকার কাছে ইমরান খানের অপরাধ কী তা বুঝতে গেলে দুটি জিনিস জানতে হবে ১) পেট্রোডলার কি? এটা হচ্ছে মূলত বাদশা ফয়সাল ও প্রেসিডেন্ট নিক্সনের মধ্যে অনুষ্ঠিত 1974 সালে করা একটি চুক্তি।…………………।।”

তথ্য যাচাই করে আমরা জানতে পারি পোস্টের দাবি ভুয়ো ও বিভ্রান্তিকর। নাসিরা জাভিদ ইমরান খানের পক্ষে কোনও মন্তব্য করেনি। 

ফেসবুক পোস্ট আর্কাইভ 

তথ্য যাচাই 

এই দাবির সত্যতা যাচায় করতে আমরা প্রথমে বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মে নাসিরা জাভেদের প্রোফাইলে এই জাতীয় কোনও লেখা প্রকাশ করা হয়েছে কিনা তা খুঁজে দেখার চেষ্টা করি। কোনও সামাজিক মাধ্যমেই আমরা নাসিরা জাভেদের কোনও প্রোফাইল খুঁজে পাইনা।  

এরপর গুগলে প্রাসঙ্গিক কিওয়ার্ড সার্চের মাধ্যমে পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম জিও নিউজ-এর অ্যাংকর আব্দুল্লাহ সুলতান-এর টুইটার প্রোফাইলে ভাইরাল এই পোস্ট কেন্দ্রিক একটি টুইট খুঁজে পাই। চলতি মাসের ১৮ তারিখের এই টুইটে জিও পাকিস্তান টিভি-এর একটি সাক্ষাৎকারের ভিডিও ক্লিপ শেয়ার করা হয়। আব্দুল্লাহ সুলতান ও মহিলা উপস্থাপক ভাইরাল এই পোস্টের ব্যাপারে নাসিরা জাভিদকে জিজ্ঞেস করলে প্রতিউত্তরে প্রাক্তন বিচারপতি জানান, “আমার কোন সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট নেই। আমি এরকম কোন মন্তব্যও করিনি। আমি এরকম মন্তব্য কেনই বা করতে যাব?”

জিও টিভির অনলাইন পোর্টালেও এই একই ভিডিও শেয়ার করা হয়েছে। দেখতে ক্লিক করুন এখানে। 

নিষ্কর্ষঃ তথ্য যাচাই করে ফ্যাক্ট ক্রিসেন্ডো সিদ্ধান্তে এসেছে উপরোক্ত দাবিটি ভুল ও ভিত্তিহীন। নাসিরা জাভিদ ইমরান খানের পক্ষে কোনও মন্তব্য করেনি।

Avatar

Title:ইমরান খানের সরকার পতন নিয়ে কোনও মন্তব্য করেননি নাসিরা জাভিদ

Fact Check By: Nasim A 

Result: False


Leave a Reply

Your email address will not be published.